October 25, 2021, 2:16 am

গাজায় সহিংসতা নিয়ে যা বলল সৌদি আরব

ফিলিস্তিনিদের উপর ইসরায়েলি দখলদার বাহিনীর সহিংস হামলায় ভয়াবহ রুপ নিয়েছে গাজার পশ্চিম তীর। বিষয়টি নিয়ে বিশ্ব রাজনীতিতে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এমন সময়ে বিষয়টি সম্পর্কে মুখ খুলেছে সৌদি আরব। এ বিষয়ে সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফয়সাল বিন ফাহাদ বলেছেন, ইসরায়েলি দখলদার বাহিনীর সহিংস হামলার কারণে আমরা ভুল পথে ধাবিত হচ্ছি। সেখানে দ্রুত সংঘাত বন্ধ করা প্রয়োজন।

সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, গাজায় যেসব সহিংসতা চলছে তাতে আমরা ভুল পথে এগোচ্ছি। ওই অঞ্চলে প্রয়োজন শান্তি। সেই লক্ষ্যে এতোদিন যেসব আলোচনা ও কার্যক্রম চলছিলো তার সব মুখ থুবড়ে পড়েছে। চলমান ইসরায়েলি সহিংসতা শান্তি প্রক্রিয়াকে আরও বেশি দীর্ঘ করবে।

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় দখলদারিত্বকে কেন্দ্র করে শুরু হওয়া সংঘাতে ইসরায়েলের সামরিক বাহিনীর গোলাবর্ষণে এ পর্যন্ত প্রাণ গেছে ২২০ জন ফিলিস্তিনির, যাদের মধ্যে শিশুর সংখ্যা ৬৩ জন; আহতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে দেড় হাজার।

অন্যদিকে, গাজা উপত্যকা নিয়ন্ত্রণকারী দল হামাসের ছোড়া রকেটে ইসরায়েলে ২ শিশুসহ নিহতের সংখ্যা পৌঁছেছে ১২ জনে। সেখানে আহত হয়েছেন অন্তত ৩০০ জন।

ক্ষেপনাস্ত্র অকার্যকর ব্যবস্থা (অ্যান্টি মিসাইল সিস্টেম)-আয়রন ডোম ব্যবহার করে ছোড়া রকেটগুলোর ৯০ শতাংশই অকার্যকর করতে সক্ষম হয়েছে ইসরায়েলের সামরিক বাহিনী, কিন্তু তারপরও আশদোদ, আশকেলন, বিরসেবা শহরসহ দেশটির উত্তরাংশে বেশ ক্ষয়ক্ষতি করতে সক্ষম হয়েছে হামাসের ছোড়া রকেটগুলো।

গাজা উপত্যকায় বসাবাসকারী স্থানীয় ফিলিস্তিনিদের উচ্ছেদ এবং ইসরায়েলি বসতকারীদের ভূমি দখলকে কেন্দ্র করে হামাস ও ইসরায়েলের সামরিক বাহিনীর মধ্যে শুরু হওয়া এই সহিংসতা গড়িয়েছে নবম দিনে। এই ৯ দিনে ইসরায়েলের বিভিন্ন শহর ও স্থাপনা লক্ষ্য করে হামাস প্রায় ৩ হাজার ৪৫০ টি রকেট ছুঁড়েছে হামাস।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


লাইক দিন
%d bloggers like this: